জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও বিরোধীদলীয় উপনেতা জি এম কাদের বলেছেন, সংক্রমণপ্রবণ এলাকাগুলোতে করোনা চিকিৎসায় ফিল্ড হাসপাতাল নির্মাণ জরুরি হয়ে পড়েছে। করোনার প্রকোপ কমছেই না। তাই দেশের মানুষের জীবন বাঁচাতে এই মুহূর্তে ফিল্ড হাসপাতাল নির্মাণের বিকল্প নেই। প্রয়োজনে ফিল্ড হাসপাতাল নির্মাণে সেনাবাহিনীকে দায়িত্ব দেওয়া যেতে পারে। গতকাল এক বিবৃতিতে এ কথা বলেন তিনি।

জি এম কাদের আরও বলেন, এ বছর মে মাসের শুরু থেকেই করোনার ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়ে। পর্যায়ক্রমে পুরো দেশই করোনার হটস্পট হয়ে পড়েছে। ইতিমধ্যে করোনা ডেডিকেটেড হাসপাতালগুলোর প্রায় ৯০ শতাংশ বেড পূর্ণ হয়ে গেছে। আইসিইউও খালি নেই বেশির ভাগ হাসপাতালে। স্বাস্থ্যমন্ত্রীর বক্তব্য অনুযায়ী আবাসিক হোটেলগুলোকে হাসপাতাল করার চিন্তা করছে সরকার। কিন্তু অত্যন্ত সংক্রামক করোনা চিকিৎসার জন্য তুলনামূলকভাবে ফিল্ড হাসপাতাল নির্মাণই সুবিধাজনক ও কম ঝুঁকিপূর্ণ। ইতিমধ্যে চীন, থাইল্যান্ড ও ইন্দোনেশিয়া করোনা মোকাবিলায় ফিল্ড হাসপাতাল নির্মাণ করে করোনা চিকিৎসায় সাফল্য পেয়েছে। জাপা চেয়ারম্যান বলেন, আমাদেরও এই পদক্ষেপ নেওয়া উচিত। বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ইঞ্জিনিয়ারিং কোর এ বিষয়ে অভিজ্ঞ। ফলে ফিল্ড হাসপাতাল নির্মাণে তাদের দায়িত্ব দিলে দেশ উপকৃত হবে।